শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ১১ ফাল্গুন, ১৪৩০
Live TV
সর্বশেষ

মেহেরুল ইসলাম মোহন নাটোর

বাগাতিপাড়ায় আখ ক্রয় কে কেন্দ্র করে মারপিট

দৈনিক দ্বীনের আলোঃ মেহেরুল ইসলাম মোহন নাটোর
১১ জানুয়ারি, ২০২৪, ১১:২৮ পিএম | 79
বাগাতিপাড়ায় আখ ক্রয় কে কেন্দ্র করে মারপিট
১১ জানুয়ারি, ২০২৪, ১১:২৮ পিএম | 79

নাটোরের বাগাতিপাড়ায় আল-আফতাব খান সুইট নামে স্থানীয় এক সাংবাদিককে মারপিট করার অভিযোগে থানায় একটি এজাহার হয়েছে।এজাহারকারী নাটোর চিনিকলের নওশেরা আঁখ ক্রয় কেন্দ্রের মৌসুমি ক্রয় করনিক হিসেবে কর্মরত ছিলেন।
আখের বিল বরাদ্দকৃত পরিমাণের চেয়ে বেশি লিখে না দেওয়ায় তাকে মারপিট করা হয় বলে থানায় দায়েরকৃত এজাহারে উল্লেখ করা হয়েছে। বুধবার(১০ই জানুয়ারি-২৪) দুপুরের দিকে উপজেলার নওশেরা মহল্লায় অবস্থিত নাটোর সুগার মিলস এর আখ ক্রয় কেন্দ্রে ঘটনাটি ঘটে।
এ ঘটনায় বুধবার রাতেই আল-আফতাব খান সুইট বাদি হয়ে ৪ জনের নাম উল্লেখ সহ আরও অজ্ঞাত ৫/৬ জনের বিরুদ্ধে বাগাতিপাড়া মডেল থানায় এজাহার দায়ের করেন।
অভিযুক্তরা হলেন একই উপজেলার সোনাপাতিল এলাকার মৃত জালালের ছেলে আজিজুর রহমান @আজিজ(৬০) ও তাঁর ছেলে কৌশিক(২৬),সাংবাদিক আরিফুল ইসলাম তপু ও খাদেমুল সহ অজ্ঞাত ৫/৬ জন।
এজাহার ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গণমাধ্যম কর্মী আল-আফতাব খান সুইট মৌসুমী করনিক হিসেবে উপজেলার নওশেরা আখ ক্রয় কেন্দ্রে অফিসের দায়িত্ব পালন করছিলেন।

এমতাবস্থায় বুধবার দুপুরের দিকে উপজেলার সোনাপাতিল মহল্লার মৃত জালাল উদ্দিনের ছেলে আজিজুর রহমান ওই আখ ক্রয় কেন্দ্রে যান এবং ক্রয় করনিক সুইটের কাছে চাঁদা হিসাবে তার বরাদ্দের চেয়ে আখের বিল বেশি লিখে দিতে বলেন।
অফিসের নিয়ম বর্হিভূত ভাবে লিখে দিতে রাজি না হওয়ায় আজিজুর রহমান স্থানীয় কাউন্সিলর পরিচয় দিয়ে ক্রয় করনিক আল-আফতাব খান সুইটকে গালিগালাজ সহ প্রাণে মেরে ফেলার হুমকী দিয়ে চলে যায়।
এর কিছুক্ষণ পর আজিজসহ আরো ৫-৬ জন সেখানে এসে আল-আফতাব খান সুইটের ওপর চড়াও হয়ে এলোপাতারি মারপিট করে নগদ টাকা এবং অফিসিয়াল নথি নিয়ে চলে যায়।
পরে উপস্থিত লোকজন আল-আফতাব খান সুইটকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে বাগাতিপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।
ঘটনাস্থলে উপস্থিত আমির আলী,সোহাগ সহ অরো কয়েকজন চাষী জানান,আমরা ওই দিন আখ বিক্রির জন্য সেখানে গিয়েছিলাম।হঠাৎ ৪/৫ জন মোটর সাইকেল নিয়ে এসে ক্রয় করনিককে মারপিট করে চলে যান।
নাটোর সুগার মিলের এজিএম ফেরদৌস আলম রঞ্জু বলেন, মিলের একজন মৌসুমী ক্রয় করনিককে মারপিট করা হয়েছে। তিনিএঘটনায় জড়িতদের তদন্ত সাপেক্ষে দ্রুত আইনের আওতায় আনার দাবি জানান।
বাগাতিপাড়া মডেল থানার ওসি নান্নু খান বলেন,ওই ঘটনায় নিয়মিত মামলা রজু করা হয়েছে। পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।মামলা দায়েরের পর মামলার আসামীদের গ্রেপ্তারে পুলিশ অভিযান চালাচ্ছে।

error: Content is protected !!