শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ১১ ফাল্গুন, ১৪৩০
Live TV
সর্বশেষ

কুষ্টিয়ায় র‌্যাবের অভিযানে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড সাজাপ্রাপ্ত আসামি গ্রেফতার

দৈনিক দ্বীনের আলোঃ
১৭ জানুয়ারি, ২০২৪, ১:৫৩ পিএম | 46
কুষ্টিয়ায় র‌্যাবের অভিযানে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড সাজাপ্রাপ্ত আসামি গ্রেফতার
১৭ জানুয়ারি, ২০২৪, ১:৫৩ পিএম | 46

 

মোঃ মুকুল হোসেন (কুষ্টিয়া)

“বাংলাদেশ আমার অহংকার” এই স্লোগান নিয়ে র‍্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ান (র‍্যাব) প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে বিভিন্ন ধরণের অপরাধীদের গ্রেফতারের ক্ষেত্রে জোরালো ভূমিকা পালন করে আসছে। র‍্যাবের সৃষ্টিকাল থেকে বিপুল পরিমাণ অবৈধ অস্ত্র, গোলাবারুদ উদ্ধার, চাঁদাবাজ, সন্ত্রাসী, খুনি, ছিনতাইকারী, অপহরণ ও প্রতারকদের গ্রেফতার করে সাধারন জনগণের মনে আস্থা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে। এছাড়াও বিভিন্ন সময়ে সংঘটিত চাঞ্চল্যকর হত্যাকান্ডে জড়িত অপরাধীদের আইনের আওতায় এনে র‍্যাব জনগণের সুনাম অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে”

 

র‌্যাব-১২ সিপিসি-১ কুষ্টিয়া ক্যাম্পের অভিযানে মাদক মামলায় যাবজ্জীবন কারাদণ্ড সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামি মোছা. ময়না খাতুন (৩৭) নামের একজন দীর্ঘ ৯ বছর পর গ্রেফতার হয়েছে। গ্রেফতারকৃত আসামী ময়না খাতুন কুষ্টিয়া জেলার ভেড়ামারা থানাধীন নওদাপাড়া এলাকার মো. খাজার স্ত্রী।। মঙ্গলবার (১৬ জানুয়ারী) র‌্যাব-১২, সিরাজগঞ্জ হেডকোয়ার্টারে অধিনায়ক অ্যাডিশনাল ডিআইজি মো. মারুফ হোসেন পিপিএম, এর দিকনির্দেশনায়

র‌্যাব-৪ সিপিসি-২, র‍্যাব-১২ সিপিসি-১, কুষ্টিয়া ক্যাম্পের যৌথ অভিযানে রাত ১০ টার সময় ঢাকা জেলার সাভার থানা এলাকা হতে তাকে গ্রেফতার করা হয়।বুধবার (১৭ জানুয়ারী) বেলা ১১ টার সময় র‍্যাব-১২ কুষ্টিয়া ক্যাম্পের মিডিয়া কক্ষে এক প্রেস ব্রিফিংয়ের মাধ্যমে এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন কুষ্টিয়া ক্যাম্পের স্কোয়াড কমান্ডার সিনি. এএসপি কিশোর রায়। প্রেস ব্রিফিংয়ে তিনি জানান, গত ০৪ সেপ্টেম্বর ২০১৫ ইং তারিখ কুষ্টিয়া জেলার ভেড়ামারা থানাধীন নওদাপাড়া এলাকার মনোয়ারা বেগম এর বাড়ীর সামনে অবৈধ হেরোইন ক্রয়/বিক্রয়ের জন্য নিজ হেফাজতে রেখে অবস্থান করাকালে গ্রেফতার হন কুষ্টিয়া জেলার ভেড়ামারা উপজেলার নওদাপাড়া গ্রামের মোছা. ময়না খাতুন। উক্ত ঘটনায় কুষ্টিয়া জেলার ভেড়ামারা থানায় মোছা. ময়না খাতুনের বিরুদ্ধে মাদক নিয়ন্ত্রণ আইনে একটি মামলা দায়ের করা হয়। মামলার বিচারিক কার্যক্রম শেষে ২৮ নভেম্বর ২০২১ সালে কুষ্টিয়ার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালত-১ এর বিচারক আসামিকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড ও ২০,০০০/- টাকা অর্থদণ্ড অনাদায়ে আরও ১ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড সাজা দিয়ে রায় প্রদান করেন। আটক হওয়ার পর প্রায় ৭ মাস জেল খেটে জামিনে মুক্তি পান মোছা. ময়না খাতুন। এরপর থেকেই তিনি পলাতক ছিলেন। জেল থেকে মুক্তি পাওয়ার পর প্রথম স্বামীকে তালাক দিয়ে তিনি ঢাকায় চলে যান এবং ঢাকায় বিবাহ করে সংসার শুরু করেন। পলাতক সাজাপ্রাপ্ত আসামিকে গ্রেফতারের ব্যাপারে র‌্যাব উদ্যোগী হয়ে গোয়েন্দা নজরদারি অব্যাহত রাখে। এরই ধারাবাহিকতায় র‍্যাব গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান পরিচালনা করে ঢাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়। পরবর্তীতে গ্রেফতারকৃত আসামিকে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য আদালতে প্রেরণ করেন র‍্যাব।

উল্লেখ্য যে, এই ধরণের অভিযান সচল রাখতে র‌্যাব-১২ সিপিসি-১ কুষ্টিয়া বদ্ধপরিকর। র‌্যাব-১২ সিপিসি-১ কুষ্টিয়াকে তথ্য দিন মাদক, অস্ত্র ও জঙ্গীমুক্ত বাংলাদেশ গঠনে অংশ নিন।

error: Content is protected !!