শনিবার, ১৩ জুলাই, ২০২৪, ২৯ আষাঢ়, ১৪৩১
Live TV
সর্বশেষ

শিবপুরবাসী আলহাজ্ব সাখাওয়াৎ হোসেন সুমনের আশা ছাড়েননি।

দৈনিক দ্বীনের আলোঃ
২১ এপ্রিল, ২০২৪, ১২:৫৪ অপরাহ্ণ | 20
শিবপুরবাসী আলহাজ্ব সাখাওয়াৎ হোসেন সুমনের আশা ছাড়েননি।
২১ এপ্রিল, ২০২৪, ১২:৫৪ অপরাহ্ণ | 20

মোঃ কামাল হোসেন প্রধান জেলা প্রতিনিধি নরসিংদী ঃ

নরসিংদীর শিবপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনকে সামনে রেখে শিবপুরবাসী এখনো আশা ছাড়েননি , বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ,কর্মী বান্দব নেতা, জনদরদী,মিষ্টি বাসি সাবেক মহাসচিব বি এল ই এ আলহাজ্ব সাখাওয়াৎ হোসেন সুমন এর । শিবপুর উপজেলা পাহাড়ি এলাকার কৃতি সন্তান সাবেক সংসদ সদস্য ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান তৎকালীন উন্নয়নের রূপকার শাহজাহান সাজুর ( যিনি পাহাড়ি এলাকার কালা মানিক হিসেবে সু পরিচিত) তাহার আপন চাচাতো ভাই আলহাজ্ব সাখাওয়াৎ হোসেন সুমন । তিনি শিবপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে অংশগ্রহণের কথা সাধারণ মানুষের মুখে মুখে শোনার পর, শিবপুর বাসির মধ্যে গণজোয়ারের ঢেউ জাগে। সরজমিনে ও তৃণমূল জনসাধারণের মতামতের ভিত্তিতে জানা যায়, আলহাজ্ব সাখাওয়াৎ হোসেন সুমন যদি নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেন তাহলে যোহর ইউনিয়ন ,জয়নগর ইউনিয়ন,বাঘাব ইউনিয়ন ,এই তিনটি ইউনিয়ন পাহাড়ি এলাকা হিসেবে সুপরিচিত, পাহাড়ি এলাকার তিনটি ইউনিয়ন থেকে প্রায় ৭০% এর বেশী ভোট পাবেন আলহাজ্ব সাখাওয়াৎ হোসেন সুমন। বিভিন্ন রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ এবং সাধারণ মানুষের সাথে আলাপ আলোচনা করে জানা যায় আলহাজ্ব সাখাওয়াৎ হোসেন সুমন উনার মতো মানুষ জনপ্রতিনিধি হিসেবে নির্বাচিত হলে তৃণমূল সাধারন মানুষ শান্তিতে বসবাস করতে পারতো এবং তাদের ন্যায্য অধিকার থেকে বঞ্চিত হতো না, পুটিয়া ইউনিয়ন , আইয়ূবপুর ইউনিয়ন, সাধারচর ইউনিয়ন, দুলালপুর ইউনিয়ন এই চারটি ইউনিয়ন থেকে ৫০% ভোট পাবেন এবং শিবপুর পৌরসভা হতে ৪০% ভোট পাবেন আলহাজ্ব সাখাওয়াৎ হোসেন সুমন, তৃণমূল রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ ও সাধারণ মানুষ বলেন সুমন এর মতো মানুষ জন প্রতিনিধি হওয়া প্রয়োজন, তিনি একজন ভালো মনের মানুষ, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী দানবীর ও সমাজসেবক, উন্নয়নমূলক কর্মকান্ডের জন্য এমন মানুষ আমাদের প্রয়োজন কিন্তু ভালো মানুষ রাজনীতিতে অংশগ্রহণ করুক এটা দুর্নীতিবাজ কিছু নেতৃবৃন্দ চায় না কিন্তু জনগণ চায় আলহাজ্ব সাখাওয়াৎ হোসেন সুমন নির্বাচনে অংশগ্রহণ করুক, আমরা দল-মত নির্বিশেষে উনাকে ভোট দিয়ে জয়যুক্ত করিব । পাহাড়ি এলাকার গর্বিত দুই কৃতিসন্তান ১/ সাবেক সংসদ সদস্য ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান তৎকালীন সময়ে উন্নয়নের রূপকার শাহজাহান সাজু এর অসুস্থতার কারণে এবং ২/ সাবেক শিবপুর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মরহুম ফজলুর রহমান ফটিক মাস্টার এর মৃত্যুর কারণে পাহাড়ি এলাকার তিনটি ইউনিয়ন নেতা শূন্যতায় রয়েছে দীর্ঘ বছর যাবৎ এ শূন্যস্থান পূরণ করার মত একমাত্র ব্যক্তি আলহাজ্ব সাখাওয়াৎ হোসেন সুমন এর মতো মানুষ প্রয়োজন বলে তৃণমূলের সর্বস্তরের জনসাধারণ মনে করেন। শিবপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করার ব্যাপারে আলহাজ্ব শাখাওয়াতৎ হোসেন সুমন বলেন, আমি জনগণের সেবক হয়ে বেঁচে থাকতে চাই , নির্বাচন না করেও জনগণের সেবা করা যায়। নির্বাচনে অংশগ্রহণ করব কিনা সে সিদ্ধান্ত এখনো নেননি।

error: Content is protected !!